বুধবার, ২০ নভেম্বর ২০১৯, ০৬:২২ অপরাহ্ন

সংবাদ শিরোনাম:
১০ দিন ধর্মঘটেও চালের বাজারে প্রভাব পড়বে না, গ্যারান্টি: খাদ্যমন্ত্রী গাড়ির চাকার হাওয়া বের করে দিচ্ছেন ধর্মঘটকারীরা সময়মতো স্কুলে না আসায় প্রধান শিক্ষককে খুঁটির সঙ্গে বাঁধল এলাকাবাসী প্রতিকূলতা উপেক্ষা করে নেদার‌ল্যান্ডসের রাজধানীতে প্রথমবার মাইকে আজান লবণকাণ্ডে ২২ ব্যবসায়ীকে আটক, ৫৬ জনকে জরিমানা ট্রাক মালিক-শ্রমিকদের আন্দোলনে বিএনপির সমর্থন টাঙ্গাইলে লবণের দাম বেশি নেয়ায় ১ লাখ টাকা জরিমানা প্রধানমন্ত্রীকে ক্ষমতা ছেড়ে দিয়ে নতুন নির্বাচনের দাবি ইসলামী আন্দোলনের তুরস্কের ভূমধ্যসাগরীয় সামরিক মহড়ায় যোগ দিচ্ছে পাকিস্তান লবণ ইস্যু: ডিএমপিসহ সারা দেশে পুলিশকে মাঠে নামার নির্দেশ
আরব দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্কোন্নয়নে ইসরাইলের নতুন উদ্যোগ

আরব দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্কোন্নয়নে ইসরাইলের নতুন উদ্যোগ

আরব দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্কোন্নয়নে ইসরাইলের নতুন উদ্যোগ

ইসরাইলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইসরায়েল কার্টজ বলেছেন, উপসাগরীয় দেশগুলোর সঙ্গে তিনি একটি আগ্রাসনবিরোধী চুক্তি করতে চাচ্ছেন। যদিও আগামীতে সম্ভাব্য শান্তি চুক্তির শুরু হিসেবে যেটাকে স্বীকৃতি দিচ্ছে না দেশটি।

তবে এ সংক্রান্ত প্রস্তাবের বিস্তারিত তথ্য প্রকাশ করা হয়নি। কিন্তু আনুষ্ঠানিকভাবে কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই এমন আরব দেশগুলোর সঙ্গে ইসরাইলের সম্পর্কোন্নয়নের চেষ্টা হিসেবে দেখা হচ্ছে এমন উদ্যোগকে।-খবর এএফপির

আরব দেশগুলোর সঙ্গে ইসরাইলের শান্তি চুক্তির ক্ষেত্রে বড় বাধা হয়ে আছে ফিলিস্তিনি ভূখণ্ডে দেশটির অবৈধ দখলদারিত্ব। কিন্তু মধ্যপ্রাচ্যে ইরানের প্রভাব ঠেকাতে অবৈধ দেশটির সঙ্গে আরবদের ঘনিষ্ঠতা বাড়ছে।

টুইটারে দেয়া এক পোস্টে তিনি শনিবার বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থনে সম্প্রতি একটি রাজনৈতিক উদ্যোগকে এগিয়ে নিতে যাচ্ছি আমরা। আরব দেশগুলোর সঙ্গে একটি আগ্রাসনবিরোধী চুক্তি করতে চাচ্ছি।

এই ঐতিহাসিক উদ্যোগে সংঘাতের অবসান ঘটবে এবং শান্তি চুক্তি সই হওয়ার আগ পর্যন্ত বেসামরিক লোকজনকে সহযোগিতা বাড়াতে সুযোগ করে দেবে বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

কার্টজ বলেন, এ নিয়ে সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে উপস্থিত থাকার সময় ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিদায়ী দূত জেসন গ্রিনব্লাট ও নাম প্রকাশ না করা আরব পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের সঙ্গে তিনি আলোচনা করেছেন।

তবে এর বাইরে বিস্তারিত তথ্য দিতে অস্বীকার করেছেন কার্টজের একজন মুখপাত্র। এই চেষ্টার ক্ষেত্রে কতটা অগ্রগতি হয়েছে, তাও পরিষ্কার হওয়া সম্ভব হয়নি।

কেবল জর্ডান ও মিসরের সঙ্গে শান্তি চুক্তি রয়েছে দখলদার ইসরাইলের। তবে আরব দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক উন্নয়নের প্রকাশ্য আভাস সম্প্রতি পাওয়া যাচ্ছে।

বছরখানেক আগে মাসকাটে ওমানের সুলতান কাবোসের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে সবাইকে অবাক করে দেন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনইয়ামিন নেতানিয়াহু।

গত জুলাইতে কার্টজ বলেন, ওয়াশিংটন সফরে বাহরাইনি পররাষ্ট্র মন্ত্রীর সঙ্গে প্রকাশ্যে বৈঠক করেছেন তিনি।

জুনে বাহরাইনে ইসরাইলি-ফিলিস্তিনি শান্তি নিয়ে মার্কিন নেতৃত্বাধীন অর্থনৈতিক সম্মেলনে উপস্থিত হন একদল ইসরাইলি সাংবাদিক।

কিন্তু জুলাইয়ে আরব দেশগুলো থেকে একদল অতিথি ইসরাইল সফরে গেলে ফিলিস্তিনিরা তাদের প্রতিরোধ করেন। এসব আরবদের প্রতি চেয়ার ও জুতা নিক্ষেপ করেন কয়েক দশক ধরে নিপীড়নের শিকার ফিলিস্তিনিরা।

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2018 BangaliTimes.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com