মঙ্গলবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:১২ পূর্বাহ্ন

সরকার কোভিডকে পুঁজি করে জনগণকে লুট করছে: ফখরুল

সরকার কোভিডকে পুঁজি করে জনগণকে লুট করছে: ফখরুল

সরকার কোভিডকে পুঁজি করে জনগণকে লুট করছে: ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, আজকে যখন করোনা মহামারী পৃথিবীর সমস্ত মানুষকে এলোমেলো করে দিচ্ছে। বিশেষ করে বাংলাদেশের মতো একটি গণবহুল দেশে যখন মানুষের জীবন ও জীবিকাকে বিপন্ন করে ফেলেছে।

সেই সময় এই আওয়ামী লীগের সরকার তারা কোভিডকে পুঁজি করে জনগণকে লুট করছে। তারা রাষ্ট্রের সম্পদ লুট করছে। যে কষ্টে অর্জিত ট্যাক্স বাংলাদেশের মানুষ দেয়, আমাদের প্রবাসীরা বিদেশে গিয়ে যে রেমিট্যান্স পাঠায়, আমাদের শ্রমিকেরা গার্মেন্টসে কাজ করে যে অর্থ উপার্জন করে সেই অর্থ তারা লুট করে নিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশ এখন একটা লুটের রাজত্ব চলছে। বুধবার (২৮ জুলাই) রাতে ভারচুয়াল এক স্মরণ সভার বিএনপি মহাসচিব এসব কথা বলেন।

মির্জা ফখরুল বলেন, এখন তারা মানুষের সাথে এতো প্রতারণা করে, এতো মিথ্যা কথা বলে, এতো ভাঁওতাবাজি করে টিকাই এখন পর্যন্ত সংগ্রহ হলো না। এখন পর্যন্ত তিন কোটি টিকাই আনতে পারলো না ভারত থেকে। তারা এখন বলছে ইউনিয়ন পর্যন্ত নাকি তারা টিকা দেবে? এটা জনগণকে বিভ্রান্ত করা ছাড়া আর কিছুই নয়। এই সরকার একটা জিনিস খুব ভালো পারে অবলিলায় মিথ্যা বলতে থাকে পরে মিথ্যাকে সত্য বলে প্রমাণ করে।

তিনি বলেন, বর্তমান সময়টা বাংলাদেশের রাজনৈতিক ইতিহাসে সবচেয়ে ভয়ঙ্কর একটা সময়। সবচেয়ে বেশি সংকট এখন। আমাদের গণতান্ত্রিক অধিকার গুলোকে হরণ করে নিয়েছে সরকার। যে সরকারের সাথে জনগণের কোন সম্পর্ক নেই। এই আওয়ামী লীগের সরকার। যারা জোর করে রাতের অন্ধকারে নির্বাচন দখল করে নিয়ে ক্ষমতায় বসে আছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, যারা আমাদের অর্জিত সমস্ত সম্পদগুলো অবলীলায় ধ্বংস করে দিচ্ছে। শুধু তাদের হীন নকশাকে বাস্তবায়ন করার জন্য। তারা সারাজীবন ক্ষমতায় থাকতে চায় একদলীয় শাসনব্যবস্থা বাকশাল প্রতিষ্ঠা করে। আজকের এই সরকার বাংলাদেশের বিরুদ্ধে দাড়িয়েছে, এই সরকার বাংলাদেশের মানুষের বিরুদ্ধে দাড়িয়েছে। আমাদের যে সংবিধান সেটার কাঠামো তারা পুরোটাই বদলে দিয়েছে।

ফখরুল বলেন ৭৫’সালে তারা বাকশাল প্রতিষ্ঠা করেছিলো। আজকে তারা ছদ্মবেশ গণতন্ত্রের খোলসকে রেখে অত্যান্ত সুকৌশলে আবার সেই বাকশাল প্রতিষ্ঠা কতরে চলেছে।

গুরুত্বপূর্ণ সব সংবাদ  পেতে আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে অ্যাকটিভ থাকুন।

https://www.facebook.com/BangaliTimesofficel

দয়া করে নিউজটি শেয়ার করুন..

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2018 Bangalitimes.com
Design & Developed BY ThemesBazar.Com